সূর্যের রঙ আদতে সাদা! প্রমাণ দিলেন নাসার প্রাক্তন মহাকাশচারী

 

বিবিধ ডট ইন: এতদিন আমরা জানতাম সূর্যের রঙ আগুনের মতো হলুদ। তাতে আবার রয়েছে কমলা বা লাল আভা, এমন বিশ্বাস আমাদের দীর্ঘদিনের। আমরা খালি চোখেও দেখি এই দৃশ্য। তবে এই ধারণা পালটে দিলেন নাসার এক প্রাক্তন মহাকাশচারী স্কট কেলি। তাঁর বিশ্বাস ছিল সূর্যের রং আসলে সাদা! আমরা যা দেখছি, সেটা আসল সূর্যের রং নয়। তিনি সেই সত্য প্রমাণ করেই ছাড়লেন।

পদার্থবিদ্যার আলোকবিজ্ঞানের অদ্ভুত খেলায় সূর্যকে হলুদ দেখায়। সূর্যালোকে মূলত সব রং একত্রে মিশ্রিত। সব রং একত্র বলে বিজ্ঞান দেখিয়েছে তা সাদা দেখায়। আর সূর্য তো সর্বরঙের সমাহার, তাহলে সেই যুক্তিতেও সূর্য সাদা হতে চায়। নাসার প্রাক্তন ওই মহাকাশচারী বলেন, সূর্য কিন্তু সাদাই। আর তা দেখা যায়, শুধু মহাকাশ থেকেই। পৃথিবী থেকে সূর্যকে সাদা দেখা যায় না।

নাসার প্রাক্তন মহাকাশচারী স্কট কেলি বলেন, আমরা আসলে যেটা দেখি, সেটি সূর্যের আসল রং নয়। সূর্য আসলে সাদা। মঙ্গলবার তিনি সেই সত্য নিশ্চিত করেছেন। এবং বলেছেন, যাঁরা মনে করেন সূর্যের রং হলুদ, তাঁরা ভুল জানেন। আমাদের নক্ষত্রটিকে যে খালি চোখে বেশিরভাগ সময় হলুদ দেখায়, তার কারণ হল পদার্থবিদ্যার এক অদ্ভুত খেলা।

তাঁর কথায়, আমাদের বায়ূমণ্ডলে সূর্য হলুদ দেখায়। কিন্তু আপনি যদি পৃথিবীর বায়ুমণ্ডল ত্যাগ করেন, তখনই দেখবেন সূর্য কোনও একক রঙে দেখা যায় না। সূর্যের রং সাদা দেখায়। পৃথিবীর বায়ুমণ্ডল ছাড়িয়ে মহাকাশে গেলেই সূর্য দেখা দেয় নিজের রঙে, সেটাই প্রমাণ করে দেখিয়েছেন নাসার প্রাক্তন ওই মহাকাশচারী।

তিনি বলেন, আমরা সূর্যের একক রং উপলব্ধি করতে অক্ষম কারণ সূর্যালোকের পরিমাণ কেবল আমাদের চোখের ফোটোরিসেপ্টর কোষগুলিকে পরিপূর্ণ করে। যার ফলে সমস্ত রং একসঙ্গে মিশে যায়। আলোর প্রতিটি রং একত্রিত হলে সাদা হয়ে যায়। তাই সূর্য পৃথিবীতে হলুদ হলেও মহাকাশে সাদা দেখায়।

নাসার মতে, পৃথিবীর বায়ুমণ্ডলে সূর্যের রং একটি ভূমিকা পালন করে। যেহেতু ছোটো তরঙ্গদৈর্ঘ্যের নীল আলো দীর্ঘতর তরঙ্গদৈর্ঘ্যের লাল আলোর থেকে বেশি দক্ষতার সঙ্গে ছড়িয়ে পড়ে। তাই সূর্যের আলো বায়ুমণ্ডলের মধ্য দিয়ে যাওয়ার সময় আমরা সূর্যের কিছু নীল আভা হারিয়ে ফেলি। এছাড়া আমাদের বায়ুমণ্ডলের মধ্য দিয়ে যাওয়া দৃশ্যমান আলোর সমস্ত তরঙ্গদৈর্ঘ্য ক্ষয়প্রাপ্ত হয়।

হ্যালো! আপনার মতামত আমাদের কাছে মূল্যবান

%d bloggers like this: