কীভাবে এল বাংলা বিজ্ঞাপন?

এখনই শেয়ার করুন

বিবিধ ডট ইন: সেকাল থেকে একাল খবরের কাগজ হোক কিংবা ইন্টারনেট আমাদের চোখে পড়ে নতুন নতুন সব বিজ্ঞাপন। প্রচারের মাধ্যমেই যে প্রসার সম্ভব এই কথাকে মাথায় রেখেই ব্যাপক বিজ্ঞাপনের সম্ভার দেখা যায় মিডিয়ায়। জামা কাপড় থেকে শুরু করে বডি ক্রিম, হেয়ার অয়েল খাবারের জিনিস,আলতা, পাউডার সব কিছুই বিজ্ঞাপনের অংশ। এছাড়াও পাত্র পাত্রীর বিজ্ঞাপন দেওয়া হয় তাদের নাম, শারীরিক গঠনের বিবরণ দিয়ে।

ইতিহাস এবং বাংলা বিজ্ঞাপন:

বিজ্ঞাপনের ইতিহাস ঘাটলে পাওয়া যায় মিশরীয়রা পণ্য বিক্রয়ের গুণাগুণ জানাতে প্যাপিরাস ব্যবহার করত। পূর্ব চীনের একটি শহর ইনান, ব্যবসা বাণিজ্য পন্য বিক্রয়ের জন্য বিশেষভাবে পরিচিত। এই ইনান শহর থেকেই খ্রিস্টপূর্ব ৭০০ বছর আগে গঠনমূলক বিজ্ঞাপনের যাত্রা শুরু হয়। এখানকার ‘নিও ফ্যামিলি নিডল শপ’ তাদের তৈরি সুই বিক্রির জন্য ব্রোঞ্জের প্লেটে খোদাই করে প্রথম বিজ্ঞাপন দেয়।

এদিকে বাংলা বিজ্ঞাপনের ক্ষেত্রে বাংলা হরফে প্রথম লেখা হয় ১৭৭৮ সালে ‘Calcutta Chronicle’ নামক পত্রিকায়।পঞ্চানন কর্মকার ছিলেন এই বিজ্ঞাপনের প্রকাশক। তখনকার বিজ্ঞাপন ছিল সাদা কালো। সেই সময়কার বিজ্ঞাপনে এখনকার মতো অনেক অপ্রাসঙ্গিক নানা গুণের কথাও লেখা হত।

ফিচার ইমেজে ব্যবহৃত বিজ্ঞাপনটি বিখ্যাত মার্গো সোপের যা ক্যালকাটা ক্যামিকালের একটি প্রোডাক্ট।এই সাবানের বিজ্ঞাপনটি প্রকাশিত হয় ১৩৪৪ সালে।মার্গো সাবান ও নিম টুথপেস্ট পরে একসময়ে হেঙ্কেল ইণ্ডিয়া লিমিটেড কিনে নেয়। সেই হেঙ্কেল ইণ্ডিয়া এখন জ্যোতি ল্যাবোরেটরিজ লিমিটেড কোম্পানি নামে পরিচিত।

এই বিজ্ঞাপনে নিম টুথপেস্টের গুনাগুন নিয়ে এখানে উল্লেখ করা হয়েছে। এছাড়াও রয়েছে আরো বিভিন্ন বিজ্ঞাপন যা সেই সময় পাল্লা দিয়ে চলছিল যেমন গোলাপ সার,রেনুকা টয়লেট পাউডার, লক্ষ্মীবিলাস তৈল ইত্যাদি।

 

লিখলেন কাকলি কর্মকার।

Image Source: রোর


এখনই শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *