আবারও আক্রান্ত ‘সংখ্যালঘু হিন্দু’, বাংলাদেশে মা কালীর মুণ্ডচ্ছেদ করলো দুষ্কৃতিরা!

 

বিবিধ ডট ইন: বাংলাদেশে আবারও আক্রান্ত সংখ্যালঘু হিন্দুরা। এবারে দুষ্কৃতিদের রোষানলে প্রাচীন এক কালীমূর্তি। শুক্রবার গভীর রাতে বাংলাদেশের ঝিনাইদহ জেলার দউতিয়া গ্রামের প্রাচীন কালী মন্দিরে হামলা চালায় দুষ্কৃতীরা৷ মূর্তির গলা কেটে দড়িতে বেঁধে নিয়ে যাওয়া হয় প্রায় এক কিলোমিটার৷ ভাঙচুর চালানো হয় মন্দিরের অন্যান্য আসবাবেও৷

বাংলাদেশের দউতিয়া গ্রামের এই প্রাচীন কালী মন্দির ব্রিটিশ আমলের। মন্দির কমিটির প্রেসিডেন্ট সুকুমার কুন্দা সংবাদ সংস্থাকে জানিয়েছেন, রাতের অন্ধকারে দুষ্কৃতীরা মন্দিরে হামলা চালায়। মায়ের মূর্তির গলা কেটে দড়িতে বেঁধে টানতে টানতে এক কিমি পথ নিয়ে যায় দুষ্কৃতীরা৷ শনিবার ভোরে এই ঘটনা নজরে আসে স্থানীয়দের। ঐতিহাসিক এই মন্দির পরিনত হয়েছে ধ্বংসস্তুপে। ঘটনার জেরে তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে বাংলাদেশ জুড়ে। ইতিমধ্যেই এই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিস।

গত বছর দুর্গাপুজোর সময়ই একাধিক মৌলবাদী হামলার শিকার হয়েছিলেন সংখ্যালঘুরা৷ এবারেও পুজোর মুখে হামলার আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন আওয়ামি লিগের সাধারণ সম্পাদক তথা সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের৷ তবে পুলিসি তৎপরতায় পুজো চলাকালীন কোনও হিংসার ঘটনা না ঘটলেও দশমীর পর আবারও আক্রান্ত হলেন হিন্দুরা। তবে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে যাতে আর সাম্প্রতিক অশান্তি না ছড়ায়, সেদিকে বিশেষ নজর দিচ্ছে প্রশাসন।

হ্যালো! আপনার মতামত আমাদের কাছে মূল্যবান

%d bloggers like this: