ক্যানসার রোগীদের পাশে থাকার বার্তা দিয়ে মাথার চুল দান করলেন পশ্চিম মেদিনীপুরের ৮১ মহিলা

 

বিবিধ ডট ইন: ক্যানসার রোগীদের পাশে দাঁড়ানোর বার্তা দিলেন পশ্চিম মেদিনীপুরের একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের ৮১ মহিলা। মেদিনীপুর ক্যুইজ কেন্দ্র নামের ঐ সংস্থার প্রধানের জন্মদিন উপলক্ষে নিজেদের মাথার চুল দান করে মহিলারা দেখিয়ে দিলেন চিকিৎসার জন্য শুধুমাত্র অর্থ দানই মহৎ উদ্যোগ নয়, পাশে থাকা যায় আরও নানাভাবে।

পশ্চিম মেদিনীপুরে এই প্রথম এই ধরণের উদ্যোগ নেওয়া হলো। শিবিরে শালবনির গোদাপিয়াশাল থেকে এসে চুল দান করলেন সর্বকনিষ্ঠ তথা তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী অদ্রিজা ভুঁইঞা। আবার ৭৩ বছরের কল্যাণী সেনও এগিয়ে এসে নিজের চুল দিলেন মারণ রোগের সঙ্গে লড়াই করা মহিলাদের জন্য। এদিন ছিল রক্তদান শিবিরও। ওই শিবিরে রক্তদান করলেন ১৩৩ জন। চুল দান করে গিয়েছেন সুদূর গড়বেতার আমলাগোড়া ভেদুয়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা অনিন্দিতা মাইতি। তাঁর নিজের শাশুড়িও একজন ক্যানসার রোগী।

উল্লেখ্য, ক্যানসার রোগীদের চিকিৎসার জন্য কেমোথেরাপি করার দরুন তাদের মাথার চুল উঠে যায়। মাথা থেকে আকষ্মিক ভাবে এই চুল উঠে যাওয়ার ফলে অনেকেই ভোগেন মানসিক অবসাদে। তাদের অবসাদ থেকে মুক্তি দিতে এগিয়ে এসেছে নানা স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। তারা বিভিন্ন ব্যক্তির থেকে মাথার চুল সংগ্রহ করে তা দিয়ে ক্যানসার রোগীদের নকল চুল বানাতে সাহায্য করে থাকে।

এমনই এক সংস্থা হলো মুম্বইয়ের ‘মদত ট্রাস্ট’। এই ‘মদত ট্রাস্ট’কেই সাহায্য করতে রবিবার মেদিনীপুর ক্যুইজ কেন্দ্রের সভাপতি রিংকু চক্রবর্তীর জন্মদিনে কর্মসূচি নিলেন স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার অন্যান্য কর্মকর্তারা। মৌসম মজুমদার, সুজন বেরা, সুদীপ কুমার খাঁড়াদের উদ্যোগেই রবিবার মেদিনীপুর কলেজের ইগনু ভবনে বসেছিল চুলদান ও রক্তদানের আসর।

হ্যালো! আপনার মতামত আমাদের কাছে মূল্যবান

%d bloggers like this: